কলাপাড়ার চাকামইয়ায় চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূ শিরিন আক্তারের (২০) মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ

এইচ এম রাকিবুল আল হৃদয় পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধিঃ কলাপাড়া পৌরশহরের নাচনাপাড়ার ভাড়া বাসা থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে উদ্ধার করেছে। স্বামী ট্রলি চালক মিঠু সিকদার পালিয়ে গেছে। নিহতের বাবা মোখলেছ হাওলাদার জানান, তার মেয়েকে জামাতা মিঠু সিকদার পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে ঘরে লাশ ফেলে রেখে পালিয়ে গেছে। মৃতার বাবা মোখলেছ হাওলাদার সকালে গিয়ে ঘরের বাইরে থেকে ছিটকানি দেয়া দেখতে পায়। দরজা খুলে তার মেয়ে শিরিনকে কম্বল গায়ে বিছানায় ঘুমে মনে করে ডাকাডাকি করেন। সারা-শব্দ না পেয়ে আশপাশের লোকজনকে খবর দেন। বিছানার পাশেই আড়ার সঙ্গে একটি ওড়না ঝুলন্ত দেখতে পায়। জামাই মিঠু লাপাত্তা। পরে থানায় সংবাদ দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পটুয়াখালী মর্গে প্রেরণ করেছে। চাকামইয়া ইউনিয়নের বাইনবুনিয়া গ্রামের শিরিনের সঙ্গে মাত্র নয় মাস আগে আমতলীর বান্দ্রা গ্রামের বশির সিকদারের ছেলে মিঠুর বিয়ে হয়। এলাকায় ক্ষোভ ও শোকাবহ অবস্থা বিরাজ করছে। বিয়ের পর থেকে শিরিনকে নিয়ে মিঠু পৌর শহরের নাচনাপাড়া মহল্লার জাহাঙ্গীর গাজীর বাড়িতে ভাড়া থাকত। এ ব্যাপারে অফিসার ইনচার্জ কলাপাড়া থানায় জানতে চাইলে তিনি বলেন, মৃতার অভিভাবক অভিযোগ করলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful